Monday , June 17 2024
Breaking News

যেভাবে মিতালী এক্সপ্রেসে দার্জিলিং যাবেন

শেষ বার্তা ডেস্ক:

পাহাড়ের শহর দার্জিলিং।হিমালয়ের কোল ঘেঁষা ভারতের পশ্চিমবঙ্গের এই পাহাড়ি শহর চা-বাগানের জন্যও বিখ্যাত। জনপ্রিয় এই পর্যটন শহর প্রায় পুরো বছর জুড়েই শীতল থাকে। মেঘের স্বর্গরাজ্য হিসেবে পরিচিত দার্জিলিংয়ে ভ্রমণের সাধ যেন প্রতিটি বাঙালির চিরদিনের স্বপ্ন।

ভ্রমণপিপাসু বাংলাদেশিরা দীর্ঘদিন ধরেই দার্জিলিংকে তাদের পছন্দের গন্তব্যের তালিকায় রাখলেও আগে সেখানে যেতে সময় লাগত প্রায় ১৬ থেকে ১৮ ঘণ্টা। তবে দীর্ঘদিন পর চালু হওয়া মিতালী এক্সপ্রেসের কারণে দীর্ঘ এই ভ্রমণের সময় কমেছে অনেকটা। অর্থাৎ মিতালী এক্সপ্রেসের মাধ্যমে ঢাকা থেকে সহজেই পৌঁছানো যাচ্ছে নিউ জলপাইগুড়ি স্টেশনে। সেখান থেকে ট্যাক্সিতে ৩ ঘণ্টায় পৌঁছে যাবেন প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের লীলাভূমি দার্জিলিংয়ে।

দীর্ঘ ৫৭ বছর পর চালু হয়েছে ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে চলাচলকারী তৃতীয় যাত্রীবাহী ট্রেন মিতালী এক্সপ্রেস। ট্রেনটি ভারতের নিউ জলপাইগুড়ি থেকে সপ্তাহে দু’দিন এই রুটে চলাচল করে। শিডিউল অনুযায়ী, প্রতি রোববার ও বুধবার নিউ জলপাইগুড়ি থেকে ঢাকা পর্যন্ত এবং ঢাকা ক্যান্টনমেন্ট থেকে নিউ জলপাইগুড়ি পর্যন্ত প্রতি সোমবার ও বৃহস্পতিবার চলাচল করে।

নিউ জলপাইগুড়ি স্টেশন থেকে প্রতি রোববার ও বুধবার মিতালী এক্সপ্রেস ছাড়ে বেলা ১১টা ৪৫ মিনিটে এবং ঢাকায় পৌঁছায় রাত ১০টা ৩০ মিনিটে। আবার প্রতি সোমবার ও বৃহস্পতিবার ঢাকা থেকে এই ট্রেন ছাড়ে রাত ৯টা ৫০ মিনিটে ও পরের দিন ভারতে পৌঁছায় সকাল ৭টা ১৫ মিনিটে। ট্রেনের পরিচালন সময় ৯ ঘণ্টা ৫৫ মিনিট।

মিতালী এক্সপ্রেস ট্রেনটি ভারতের দিকের স্টেশন হলদিবাড়িতে এবং বাংলাদেশের দিকে চিলাহাটিতে চালক পরিবর্তনের জন্য ১০ মিনিটের বিরতি দেয়। এছাড়া এটির আর কোনো বিরতি নেই। এই যাত্রার জন্য নিউ জলপাইগুড়ি স্টেশন এবং কলকাতা রেলওয়ে স্টেশনের বিদেশি যাত্রী সংরক্ষণ ব্যবস্থা কাউন্টারে ট্রেনের টিকিট পাওয়া যায়। বাংলাদেশের কমলাপুর ও চট্টগ্রাম স্টেশনে টিকিট পাওয়া যায়।

মিতালী এক্সপ্রেসে ভ্রমণ করতে ভারতীয় ভিসায় BY RAIL NEW JALPAIGURI পোর্ট উল্লেখ থাকতে হবে।

মিতালী এক্সপ্রেস ট্রেনের ভাড়া

এসি বার্থ ভ্যাট ও ট্রাভেল ট্যাক্সসহ ৪৯০৫ টাকা, এসি সিট ভ্যাট ও ট্রাভেল ট্যাক্সসহ ৩৮০৫ টাকা ও এসি চেয়ার ভ্যাট ও ট্রাভেল ট্যাক্সসহ ২৭০৫ টাকা। উল্লেখ্য, ৫ বছর বয়স পর্যন্ত ৫০ শতাংশ ভাড়া প্রযোজ্য হবে।

মিতালী এক্সপ্রেসের টিকিট কাটার জন্য বৈধ ভিসা এবং পাসপোর্ট লাগবে। বাংলাদেশের ঢাকা ক্যান্টনমেন্ট রেলওয়ে স্টেশন এবং ভারতের নিউ জলপাইগুড়ি রেলস্টেশন থেকে টিকিট পাওয়া যাবে।

কখন ও কিভাবে টিকিট কাটবেন

নিয়ম অনুযায়ী ভারতীয় হাইকমিশন থেকে ভিসা নিয়ে অন্তত এক মাস আগে ট্রেনের টিকেট নিশ্চিত করে ভ্রমণ করতে পারবেন। সাধারণত যাত্রার ৩০ দিন আগে থেকে অগ্রিম টিকিট কাটা যায়।

ট্রেনের টিকেট কাটার সময় যাত্রীকে অবশ্যই পাসপোর্ট সাথে নিতে যেতে হবে। সেই সাথে যাত্রার দিন হতে নূন্যতম ৬ মাস পাসপোর্টের মেয়াদ থাকতে হবে। একজন একসাথে ৩ টি টিকেট ক্রয় করতে পারবেন এবং অন্য যাত্রীদের অবশ্যই পাসপোর্ট সহযোগে টিকেট বুকিং-এর সময় স্বশরীরে উপস্থিত থাকতে হবে।

ট্রেনে মালামাল পরিবহণের নিয়ম

প্রতি পূর্ণবয়স্ক যাত্রী সর্বোচ্চ ৩০ কেজি ওজনের লাগেজ বিনামূল্যে সাথে পরিবহণ করতে পারবেন। আর শিশুদের ক্ষেত্রে ২০ কেজি পর্যন্ত ফ্রি লাগেজ নেয়া যায়।

৩০ কেজির ওজনের বেশী লাগেজ নিতে গেলে আপনাকে নির্দিষ্ট হারে এক্সট্রা ফি প্রদান করতে হবে। ৩১ থেকে ৫০ কেজি ওজনের লাগেজের ক্ষেত্রে কেজি প্রতি এক্সট্রা ফির পরিমাণ ২ ডলার এবং ৫০ কেজির উপর কেজি প্রতি এক্সট্রা ফি ১০ ডলার।

এছাড়াও

শীতের পোশাক পরেই নয়, আরও নানা উপায়ে নিজেকে গরম রাখা যায়

শেষবার্তা ডেস্ক: সামনে শীত আরও জাঁকিয়ে পড়বে বলে আবহাওয়া অফিস থেকে জানা গেছে। শীত মানেই …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *